মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

কানাইঘাটে ওয়ার্ডবাসীর প্রতি কামরুলের কৃতজ্ঞতা প্রকাশ



কানাইঘাট প্রতিনিধিঃ
কানাইঘাট পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের সকল ভোটাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন সদ্য নির্বাচনে পরাজিত কাউন্সিলর প্রার্থী কামরুল হাসান জনদরদী। শনিবার তিনি তার ওয়ার্ডবাসীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে বলেন ৫নং ওয়ার্ডের ভোটাররা তার পক্ষে রায় দিয়েছিলেন। কিন্তু ষড়যন্ত্র করে তার জয়কে নিছিয়ে নেওয়া হয়েছে। তিনি উল্লেখ করে বলেন প্রশাসনের এক তরফা পক্ষপাতিত্বের কারনে তিনি বিজয়ী হতে পারেননি। এমনকি তাকে মনগড়া ভাবে ২০৩টি ভোট দেখানো হয়েছে এমনটা দাবী করে তিনি বলেন তার নিজ গ্রাম সোনাতুলা কান্দি’র পুরুষ ও মহিলা দুটি বুথ ছিল। সেই দুটি বুথের ব্যালেট বাক্সের কোন হিসাব তিনি পাননি। তিনি সহ তার এজেন্টদের ভোট গণনার পূর্বে জোর করে বাহিরে বের করে দেওয়া হয়। এর প্রায় ঘন্টাখানিক পরে তার এজেন্টকে ডেকে নেওয়া হলেও জিম্মি করে রাখা হয়। তাদেরকে কোন কথা বলতে দেওয়া হয়নি। তিনি কারন হিসাবে বলেন সোনাতুলা কান্দিগ্রামের পুরুষ ও মহিলা বুথে বেশির ভাগ ভোট ছিল নারিকেলগাছ ও জগ প্রতীকের। যার কারনে তিনি পাঠারবলি হয়েছেন বলে জানিয়েছেন। কামরুল হাসান আরো জানান তিনি যে ২০৩টি ভোট পেয়েছেন তা অন্যগ্রামগুলোর ভোটার তাকে ভোট দিয়েছেন। কিন্তু তার নিজ গ্রামের দুইটি বুথে ৪৪১ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন। সেই ভোট থেকে তিনি শতভাগ নিশ্চিত যে তার মার্কা উটপাখীতে কমপক্ষে ৩শ থেকে সাড়ে ৩শত ভোট রয়েছে। যে ভোটের কোন হিসাব তিনি পাননি। সব মিলিয়ে যদি সঠিক ভোটের হিসাব দেওয়া হত তাহলে তার বিজয় নিশ্চিত ছিল। সে জন্য তিনি ওয়ার্ডবাসীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে বলেন প্রশাসনের কাছে তিনি হারলেও জনগণের ভোটে তিনি বিজয়ী হয়েছেন।

  •